মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

প্রশাসকের বাণী

 

 

বাঙ্গালী জাতির সর্বশ্রেষ্ঠ অর্জন স্বাধীনতা। হাজার বছরের সুদীর্ঘ সংগ্রামের ফসল আমাদের এই স্বাধীন বাংলাদেশ। দীর্ঘকালের আন্দোলন-সংগ্রাম, মুক্তিপাগল জনতার তাজা রক্তের বিনিময়ে বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য নেতৃত্বে গড়ে ওঠে স্বাধীনতা যুদ্ধের পটভূমি। শুরু হয় বিশ্ব ইতিহাসের অনন্য এক যুদ্ধ। সে এক অমর কাব্য। সে কাব্যের প্রথম পাতা-স্বাধীনতার ঘোষণাপত্র প্রকাশিত হয়েছিল ১৯৭১ এর ১৭ এপ্রিল মেহেরপুর জেলার মুজিবনগরে (তৎকালীন বদ্যনাথতলায়)। স্বাধীনতার সেই প্রথম সূর্যদোয়ের অস্থায়ী রাজধানী মেহেরপুর জেলায় জন্ম গ্রহণ করায় আমি গর্বিত।

 

শতবর্ষের অধিক প্রাচীন স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান জেলা পরিষদ। জেলা পরিষদ স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানগুলির সর্বোচ্চ স্তর হিসেবে পরিচিত। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের দুই বারের সফল ও সুযোগ্য মাননীয় প্রধান মন্ত্রী আমাকে মেহেরপুর জেলা পরিষদের প্রশাসক হিসেবে নিয়োগকরায় মেহেরপুর জেলা বাসীর পক্ষ থেকে আমি আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি।

 

বর্তমান সরকারের নির্বাচনী অঙ্গীকার ডিজিটাল বাংলাদেশ। তারই সফল বাস্তবায়ন জাতীয় ওয়েব পোর্টাল। মেহেরপুর জেলা পরিষদ ওয়েব পোর্টালে সম্পৃক্ত হতে পেরেছে বলে আমি আনন্দিত। আমার জেলা বাসীর প্রতি অনুরোধঃ

 

Ø        দূর্নীতি প্রতিরোধ করুন।

Ø        আপনার শিশুকে স্কুলে পাঠিয়ে শিক্ষিত করুন।

Ø        সকল উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডে সরকারকে সহযোগিতা করুন।

Ø        জেলা পরিষদের স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি রক্ষণাবেক্ষণে সহযোগিতা করুন।

Ø        জেলা পরিষদের ভূমি অবৈধ দখল থেকে বিরত থাকুন।

Ø        জেলা পরিষদের রাস্তার পাশে কোন অবৈধ অবকাঠামো নির্মাণ করবেন না।

Ø        সময়মত জেলা পরিষদের জায়গার খাজনা ও দোকানঘরের ভাড়া পরিশোধ করে জেলার উন্নয়নে সহায়তা করুন।

Ø        এ জেলায় ভ্রমণে জেলা পরিষদ ডাকবাংলোয় আতিথেয়তা গ্রহণ করুণ।

Ø        জেলার উন্নয়ন ও সার্বিক কর্মকান্ডে দল মত নির্বিশেষে জেলা পরিষদকে সহায়তা করুণ।

পরিশেষে বাংলাদেশের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন; ক্ষুধা-দারিদ্র, নিরক্ষরতা ও সন্ত্রাসমুক্ত, শোষণহীন সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়দীপ্ত দৃঢ় অঙ্গিকারে, জেলা পরিষদেরকর্মকর্তাওকর্মচারীবৃন্দএবংসম্মানিতমেহেরপুরবাসীকেআন্তরিকঅভিনন্দনজানাই।

 

 

শুভেচ্ছান্তে

 

()

প্রশাসক

জেলা পরিষদ,মেহেরপুর।

ছবি