মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

বিশেষ অর্জন

 

মেহেরপুর ডায়াবেটিস হাসপাতালঃ

জনাবমোঃ জামাল উদ্দীন আহমেদ, জেলা প্রশাসক, মেহেরপুর গত ০৫ মার্চ, ২০১০ তারিখেমেহেরপুর সার্কিট হাউজ রোডে মেহেরপুর ডায়াবেটিস হাসপাতাল স্থাপন করেন।ডায়াবেটিস রোগীদের সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে প্রতিটি উপজেলায় ক্যাম্পিং করাহচ্ছে।

 

জেলা প্রশাসক ফাউন্ডেশনঃঅক্টোবর, ২০১১ থেকে জুলাই ২০১২ পর্যন্ত জেলা প্রশাসক ফাউন্ডেশন, মেহেরপুরের কার্যক্রমঃগত ০৫.১০.২০১১ তারিখে এ জেলার  শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি ও তথ্য-প্রযুক্তির ক্ষেত্রের ব্যপ্তি ও প্রসারে অসামান্য অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ পদক/পুরস্কার প্রদান, মেধাবী/দরিদ্রদের শিক্ষাবৃত্তি প্রদান, যৌতুক, বাল্য বিবাহ ও ইভটিজিং রোধে রচনা ও মেধা বিকাশ প্রতিযোগিতার আয়োজন ইত্যাদি লক্ষ্যকে সামনে রেখে জেলা প্রশাসক, মেহেরপুর সাহান আরা বানুর উদ্যোগে জেলা প্রশাসক ফাউন্ডেশন-এর যাত্রা শুরু হয়েছে। ফাউন্ডেশনের যাত্রা শুরুর প্রথম প্রহরে খুলনা বিভাগের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার(রাজস্ব), জনাব মোঃ সেরাজুল ইসলাম, প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থেকে ফাউন্ডেশনের পথ চলার শুভ উদ্বোধন করেন। এ জেলার পাঁচ জন দরিদ্র প্রতিবন্ধীর মাঝে হুহুল চেয়ার বিতরণ, মেহেরপুর জেলা কারাগারের মহিলা ওয়ার্ডসহ তিনটি ওয়ার্ড রঙিন টেলিভিশন প্রদান এবং এক জন মৃত কর্মচারীর সন্তানকে শিক্ষাবত্তি প্রদানের মধ্য দিয়ে ফাউন্ডেশনের কার্যক্রম র্শুরু হয়েছে। উল্লেখ্য এ জেলায় জনাব মোঃ নূরুন নবী তালুকদার, জেলা প্রশাসক, মেহেরপুর এর সুযোগ্য নেতৃত্বে ২০০৫ সালে মেহেরপুরে ফাউন্ডেশন যাত্রা শুরু করলেও একই নামে একটি এনজিও এ জেলায় কাজ করছে। এতদসংক্রান্তে মেহেরপুর ফাউন্ডেশনের কার্যক্রম জেলা প্রশাসক ফাউন্ডেশনের আওতাভুক্ত করা হয়েছে।

 

১। দরিদ্র মেধাবী ছাত্র/ছাত্রীদের শিক্ষাবৃত্তি প্রদান

২। প্রতিবন্ধীদের মাঝে হুইল চেয়ার বিতরণ

৩। অনাথ আশ্রম শিশুদের ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ

৪। কারাগারে আটকবন্দীদের মাঝে চিত্তবিনোদনের জন্য বিভিন্ন শিক্ষাউপকরণ, ক্রীড়া সামগ্রী ও ০৫ টি টেলিভিশন প্রদান

৫। প্রান্তিক অঞ্চলের বিদ্যালয়ের শিশুদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ

৬। জেএসসি/জেডিসি ও পিএসসি জিপি-৫ প্রাপ্ত ছাত্র/ছাত্রীদের সম্মাননা প্রদান

৭। এসএসসি২০১২ এ জিপিএ-৫ প্রাপ্তদের সংবর্ধনা প্রদান

৮। হতদরিদ্রদের জন্য আর্থিক সহায়তা

৯। কর্মজীবী শিশু শিক্ষার্থীদের মধ্যে শীতবস্ত্র বিতরণ

মেহেরপিডিয়া

জনার মোঃ জিয়াউর রহমান খান, জেলা প্রশাসক, মেহেরপুর ২০০৮ সনে  "মেহেরপিডিয়া’’ নামক একটি তথ্যচিত্র তৈরী করেন। উক্ত তথ্যচিত্রে সিডি আকারে মেহেরপুর জেলার ইতিহাস/ঐতিহ্য/প্রকৃতি/সম্ভাবনা তুলে ধরেন।

মুজিবনগর উপজেলা প্রতিষ্ঠা এবং মুজিবনগর কমপ্লেক্সঃ

১৯৯৭ সালে মেহেরপুরের তৎকালীন জেলা প্রশাসক জনাব মোঃ সামসুল হক মহান মুক্তিযুদ্ধের ঐতিহাসিক স্মৃতিবিজড়িত মেহেরপুরের মুজিবনগরের স্মৃতি রক্ষার্থে মুজিবনগরকে উপজেলা ঘোষণা এবং মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস জাতির সামনে তুলে ধরার লক্ষে এখানে মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতিকেন্দ্রসহ অন্যান্য প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য সরকারের নিকট প্রস্তাব প্রেরণ করেন। এরই পরিপ্রেক্ষিতে তৎকালীন সরকার মেহেরপুর সদর উপজেলার ০৪ টি ইউনিয়ন নিয়ে মুজিবনগরকে উপজেলা ঘোষণা করেন। ২০০০ সালের ২৪ ফেব্ব্রুয়ারি আনুষ্ঠানিকভাবে মুজিবনগর উপজেলার প্রশাসনিক কার্যক্রম শুরু হয়। তৎকালীন সরকার মুজিবনগরে মুজিবনগর কমপ্লেক্সে-এর মুক্তিযুদ্ধের সেক্টরসমূহ চিহ্নিতকরণ বাংলাদেশের মানচিত্র, ঐতিহাসিক ০৬ দফাভিত্তিক ০৬ উদ্যানের গোলাপবাগান, মুক্তিযুদ্ধ যাদুঘর, পর্যটন মোটেল ইত্যাদি প্রকল্প গ্রহণ করেন। মুজিবনগরে গৃহীত সরকারের এ সকল উন্নয়ন কর্মসূচি বর্তমানে বাস্তবায়নাধীন আছে।

স্বাস্থ্যসম্মত ল্যাট্রিন এবং ধূমপানবিরোধী অভিযানঃ

১৯৯৪ সালে তৎকালীন জেলা প্রশাসক জনাব মোঃ ইসহাক আলী জেলার প্রতিটি পরিবারে স্বাস্থ্যসম্মত ল্যাট্রিন ব্যবহার নিশ্চিতকরণ এবং ধূমপানরোধে কর্মসূচি গ্রহণ করেন। এ বিষয়ে সামাজিক সচেতনতা বৃদ্ধি করার লক্ষে ব্যাপক প্রচারণার ফলে স্বাস্থ্যসম্মত ল্যাট্রিন ব্যবহারে সে সময় জেলায় উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি সাধিত হয়। তবে ধূমপানবিরোধী কার্যক্রমে তেমন পরিবর্তন আনা সম্ভব হয়নি।

ওয়েব সাইট স্থাপনঃ
তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে সেবা জনগণের দোড়গোড়ায় পৌঁছানো এবং স্বচ্ছতা নিশ্চিতকরণের নিমিত্ত জেলা প্রশাসকের কার্যালয়েরweb portalচালু করা হয়েছে। এই web portal এ জেলার বিভিন্ন দপ্তর/বিভাগের উন্নয়নমূলক তথ্য প্রদান করা হয়ে থাকে। web portal এর ঠিকানাঃ www.dcmeherpur.gov.bd

হেল্প ডেস্কঃ

সরকারি সেবা আরো দ্রুত ও সহজতর করার লক্ষ্যে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে হেল্প ডেস্ক স্থাপন করা হয়েছে। এই ডেস্ক থেকে জনগণ ভূমি রেকর্ড, বিভিন্ন দপ্তরের তথ্য, পাসপোর্টের আবেদন দাখিল ও পাসপোর্ট গ্রহণ এবং অভিযোগ দাখিলসহ বিভিন্ন সেবা পাচ্ছেন।